ঘরে বসে আয় করুন হাতে লিখে বিনা পুজিঁতে – Newfreelancing

0Shares

 

আপনি যদি ঘরে বসে আয় করতে চান হাতে লিখে, তাহলে আজ ঘরে বসে লেখালেখি করে আয় বা ইনকাম করার সেরা উপায় বলব।

বর্তমান এই আধুনিক যুগের মানুষরা ইন্টারনেট থেকে বিভিন্ন ভাবে আয় করছে।

এই আয় করার মাধ্যম গুলোর মধ্যে হাতে লিখে আয় করাটাও অনেক বেশি জনপ্রিয়।

আমি আপনাদের বাড়িতে বসে টাকা ইনকাম করার যে উপায় গুলো বলব এটা সম্পূর্ন একটি অনলাইন কাজ।

এই অনলাইন কাজের মাধ্যমে বিভিন্ন মানুষরা হাজার হাজার টাকা আয় করছে প্রতি মাসে।

এই অনলাইন কাজ করার জন্য আপনার প্রয়োজন হবে একটি কম্পিউটার / ল্যাপটপ বা স্মার্টফোন এবং সাথে থাকতে হবে ইন্টারনেট কানেকশন।

এগুলো থাকলে আপনার হাতে লিখে আয় করার রাস্তা সহজ হবে।

তবে, আপনি যদি লেখালেখি করে আয় করতে চান, তাহালে কনটেন্ট রাইটিং এর বিষয়ে ভাল করে জানতে হবে।

এটা নিয়ে কোন চিন্তা করবেন না। কারণ, গুগলের বিভিন্ন ব্লগ এবং ইউটিউব থেকে আপনারা ভিডিও দেখে শিখতে পারবেন।

আমি নিজেও অনলাইনে লেখালেখির করার কাজ করছি দুই বছরের বেশি দিন ধরে।

এখান থেকে আমি বেশ ভালো পরিমানে আয় করছি। যার ফলে আমাকে বাইরের অন্য কিছু করার প্রয়োজন হচ্ছে না।

তাই আপনার জন্যও হাতে লিখে আয় করাটা লাভজনক হতে পারে।

 

ঘরে বসে আয় করার উপায় :

আমি আপনাদের টাকা আয় করার এমন উপায় বলে দিব যার মাধ্যমে আপনারা এখন থেকে আয় করতে পারবেন বিষয়টা কিন্তু তেমন না।

আপনারা যদি এমন ভাবেন তাহলে কিন্তু ভূল ভাবছেন?

কারণ, যেকোন কাজ করে টাকা আয় করাটা একটু সময়ের ব্যাপার।

এখানে যদি আপনারা সঠিক ভাবে সময় দিতে পারেন, তাহলে অবশ্যই ভাল পরিমান টাকা ঘরে বসে আয় করতে পারবেন।

কেননা সারা বিশ্ব থেকে হাজার হাজার মানুষরা এ উপায় গুলোর মাধ্যমে প্রচুর পরিমানে টাকা ইনকাম করছে।

আপনিও ধৈর্য ধরে কাজ করলে অবশ্যই সফল হবেন ইনশা আল্লাহ।

 

১. ঘরে বসে আয় করার সেরা উপায় হল ব্লগিং :

আমি আমার এই ওয়েবসাইটে ব্লগিং বিষয়ে অনেক গুলো আর্টিকেল লিখেছি, যেগুলো পড়ার পরে আশাবাদী ব্লগিং সম্পর্কে আর কোন সমস্যা থাকবে না।

এর পরেও আমি একটু বলি-

আসলে Blogging হল একটি ডায়েরির মতো যেখানে প্রায় আপনি কোন না কোন বিষয়ে লিখতেছেন।

আর এই লেখা গুলো যখন আপনি কোন ওয়েবসাইটে লিখবেন তখন সেটা ব্লগিং এর মধ্যে ধরা হয়।

 

ব্লগ কি? ব্লগ কিভাবে তৈরি করবেন (What is blog in bangla) :

এখানে আপনি আপনার জ্ঞান, দক্ষতা দিয়ে ব্লগে বিভিন্ন বিষয়ে তথ্যবহুল টিউটোরিয়াল টেক্স এর মাধ্যমে প্রকাশ করবেন।

মানে আপনাকে নিজের বা অন্যদের ব্লগে নিয়মিত কিছু বিষয়ের উপর আর্টিকেল লিখে প্রকাশ করতে হবে।

তবে, হ্যা আপনাকে এমন সব বিষয়ের উপর আর্টিকেল প্রকাশ করতে হবে যে বিষয়ের উপর আপনার জ্ঞান ও দক্ষতা রয়েছে।

আপনি এমন ভাবে লিখবেন যেন ইন্টারনেটে সক্রিয় থাকা মানুষরা পড়তে রুচি হয় এবং তাদের কাজে লাগে।

 

কিভাবে ব্লগ থেকে টাকা আয় করবেন :

How to make money from blogs? –

আপনি যখন ঘরে বসে হাতে লিখে আয় করার চিন্তা করবেন তখন আপনাকে সঠিক উপায় জানতে হবে।

আপনি যখন নতুন একটি ব্লগ তৈরি করবেন তখন সেটা একবারে নতুন থাকবে।

এই ব্লগে আপনি নিয়মিত আর্টিকেল পাবলিশ করবেন।

এতে ধীরে ধীরে বিভিন্ন সার্চ ইঞ্জিন থেকে ট্রাফিক বা ভিজিটর আসতে শুরু করবে।

যখন আপনার ব্লগে প্রতিদিন ৩০০ থেকে ৪০০ ভিজিটর আসবে গুগল সার্চ ইঞ্জিন থেকে তখন আপনি গুগল এডসেন্স এর জন্য আবেদন করবেন।

Google AdSense এর বিজ্ঞাপন নিজের ব্লগে লাগিয়ে আপনি ভাল পরিমানে আয় করতে পারবেন।

গুগল এডসেন্স থেকে আয় করাটা অনেক লাভজনক।

এছাড়া আপনি অন্য বিভিন্ন মাধ্যমে টাকা আয় করতে পারবেন।

যেমন, বিভিন্ন কোম্পানির বিজ্ঞাপন দেখিয়ে, affiliate marketing করে, পন্যের রিভিউ লিখে, নিজের কোর্স বিক্রি করে আয় করতে পারবেন।

 

ব্লগিং শুরু করার আগে কোন বিষয় খেয়াল রাখতে হবে :

প্রথমে আপনাকে চিন্তা করতে হবে আপনি ব্লগে কোন বিষয়ে লেখালেখি করতে পারবেন। মানে আপনার কোন বিষয়ে নলেজ রয়েছে।

যে বিষয়ের উপরে নলেজ রয়েছে সেই বিষয়ের উপর ভিত্তি করে ডোমেইন এবং হোস্টিং নিয়ে ওয়েবসাইট তৈরি করুন।

এবার আপনাকে নিয়মিত আর্টিকেল পাবলিশ করতে হবে এবং আর্টিকেল গুলোকে সঠিক ভাবে SEO করতে হবে।

এজন্য আপনাকে On Page SEO এবং Off page SEO সম্পর্কে ভালভাবে জানতে হবে।

আপনি ব্লগ, ইউটিউব বা এসইও কোর্স করে সহজে শিখে নিতে পারবেন।

 

Seo কি? এসইও কিভাবে শিখব :

আপনি ব্লগে কনটেন্ট লেখার জন্য কিওয়ার্ড রিসার্চ করবেন।

কারণ কিওয়ার্ড রিসার্চ এর মাধ্যমে জানতে পারবেন কোন টফিকের উপর কত জন মানুষ প্রতি মাসে সার্চ করছে।

সঠিক কিওয়ার্ড খুঁজে বের করার পরে নিজের দক্ষতা, জ্ঞান দিয়ে সেই বিষয় বিস্তারিত আর্টিকেল লিখে ব্লগে পাবলিশ করবেন।

তাছাড়া আর্টিকেলের মধ্যে টার্গেট করা keyword সঠিক ভাবে বসাতে হবে।

ব্লগের আর্টিকেলের সাথে মিল রেখে সুন্দর ও আকর্ষনীয় ছবি কনটেন্ট এর সাথে যুক্ত করতে হবে।

এর জন্য আপনারা ইন্টারনেটে ফ্রি ওয়েবসাইট পাবেন যেখান থেকে সম্পূর্ন ফ্রিতে ছবি নিতে পারবেন।

 

২. ফ্রিল্যান্সার রাইটার হিসাবে কাজ করে আয় :

আপনার লেখালেখি করার দক্ষতা এবং অভিজ্ঞতা যদি ভাল থাকে।

তাহলে, আপনি freelancer writer হিসাবে কাজ করতে পারবেন।

বর্তমানে অনলাইনে অনেক গুলো freelancing website রয়েছে, যেখানে লেখালেখি করার কাজ খুঁজে পাবেন।

বিভিন্ন ব্লগ, ওয়েবসাইট, নিউজ পোর্টাল, মিডিয়া রয়েছে যারা এই freelancing website গুলোতে গিয়ে গিয়ে কনটেন্ট রাইটার খুঁজে থাকেন।

আমি নিচে কিছু জনপ্রিয় freelancing website এর নাম  বলছি। আপনারা সেখানে গিয়ে একাউন্ট তৈরি করে কাজ খুঁজতে পারেন।

 

জনপ্রিয় ফ্রিল্যান্সিং ওয়েবসাইটের নাম :

১. Fiverr.com

২. Freelancer.com

৩. Upwork.com

৪. Guru.com

 

৩. অন্য ব্লগ বা নিউজ পোর্টালে লিখে আয় :

অনলাইনে এমন অনেক ব্লগ, নিউজ পোর্টাল এবং সোশ্যাল মিডিয়া পেজ রয়েছে যেখানে নিয়মিত ভাবে আর্টিকেল লেখার জন্য বিভিন্ন কনটেন্ট রাইটারদের ভাড়া করা হয়।

কনটেন্ট লেখার বিনিময়ে তাদেরকে টাকা দেওয়া হয়।

এখন আপনি যদি লিখে আয় করার চিন্তা করেন তাহলে এই সব ব্লগ, নিউজ পোর্টাল এবং সোশ্যাল মিডিয়া পেজ গুলোতে লেখালেখি করে আয় করতে পারবেন।

এই সব সাইটে লেখার জন্য আপনাকে বিভিন্ন ওয়েবসাইট, ব্লগ এবং সোশ্যাল মিডিয়া পেজ গুলোতে ভিজিট করতে হবে।

অধিকাংশ ব্লগ সাইটের মালিকদের সাথে সাথে যোগাযোগ করার জন্য কোন না কোন উপায় দেওয়া থাকে।

তাদের সাথে যোগাযোগ করে আর্টিকেল লেখার কাজ নিতে পারেন।

 

পরামর্শ : ঘরে বসে হাতে লিখে আয় করতে হলে নির্ভূল ভাবে দ্রুত টাইপিং, বাংলা বা ইংরেজি ভাষা জানা এবং কম্পিউটারের বিশেষ জরুরি program গুলোর ব্যবহার জানতে হবে।

সর্তকতা : অন্য কোন ওয়েবসাইট, ব্লগ এবং সোশ্যাল মিডিয়া পেজে লেখালেখি করে আয় করার আগে জেনে নিতে হবে সেগুলো সঠিকভাবে পেমেন্ট করে কিনা?

 

উপসংহারে,

পরিশেষে বলা যায় যে, ঘরে বসে আয় করুন হাতে লিখে এ সম্পর্কে এখানে বিস্তারিত আলোচনা করেছি। সর্বোপরি, উপরে উল্লেখিত বিষয় গুলো জেনে কাজ করলে ইনশাআল্লাহ আপনি ঘরে বসে আয় করতে পারবেন হাতে লিখে।

কনটেন্ট রাইটিং কি? এস ই ও ফ্রেন্ডলি Content writing লিখার নিয়ম আমাদের ওয়েবসাইট থেকে পড়ে নিন। তাছাড়া আমার লেখা ফ্রিল্যান্সিং সেক্টরে ক্যারিয়ার গড়ার গাইড লাইন পোস্টটি আপনার জন্য খুবই উপকারী হবে।

আমরা এই পোস্টে জানলাম, ঘরে বসে আয় করুন হাতে লিখে এ সম্পর্কে।

আশা করি, ঘরে বসে আয় করার উপায় বুঝতে পেরেছেন। এই পোস্টের বিষয়ে আপনার কিছু জানার থাকলে বা কোন প্রশ্ন থাকলে অবশ্যই কমেন্ট করে জানাবেন।

পোস্টটির মাধ্যমে উপকৃত হয়ে থাকলে অবশ্যই লাইক দিয়ে বন্ধুদের সাথে শেয়ার করবেন।

সবসময় সুস্থ, সুন্দর ও নিরাপদে ভাল থাকবেন। আমাদের আরও অন্যান্য পোস্টগুলো ভাল লাগলে অবশ্যই পড়তে পারেন।

এই ধরণের লেখার নিয়মিত আপডেট পেতে আমাদের ফেসবুক পেজে এবং টুইটারে ফলো করে রাখতে পারেন।

ধন্যবাদ

 

Leave a Comment