Internet থেকে আয় করার কার্যকরী উপায়। Internet income

0Shares

 

ইন্টারনেট থেকে আপনি আয় করতে পারবেন। আসলে Internet থেকে আয় করার জন্য প্রথমে আপনাকে সঠিক রাস্তা খুঁজতে হবে।

ইন্টারনেট থেকে আয় ( Internet income ) করার কথা নিয়ে অনেকের বিভিন্ন গুঞ্জন শুনেছি।

আবার, অনেকে বিভিন্ন ফাঁদে পরে অনেক টাকা হারিয়েছে।

আর আপনি যে বিষয়ে কাজ করতে চান এবং যেখানে কাজ করবেন সেগুলো আগে যাচাই-বাছাই করে দেখতে হবে।

কিন্তু এত বিশাল পরিমাণে আয় করতে পারবেনা। অনেক পরিশ্রম করতে হবে।

এমনি এমনি কোন কিছু হয়না, এর জন্য প্রচুর কাজ করতে হবে।

অনেকে আছে হালকা কিছু কাজে করে মনে করে আমি অনলাইনে কাজ করে এই করে ফেলব, সেই করে ফেলব আসলে এতো কিছু করা যায়না।

অনলাইনে কাজ করতে হলে নিজের অনেক Skill develop করতে হবে।

Internet Income করতে হলে নিজেকে উন্নত করতে হবে। অলস হয়ে বসে থাকলে কেউ কাজ দিবেনা।

Internet থেকে আয় করা যেমন সম্ভব তেমনি এখানে রয়েছে অনেক বিপদ।

আপনি যদি কোন প্রতারকের হাতে পড়ে যান, তাহলে আপনাকে অনেক টাকা জলাঞ্জলি দিতে হবে এর জন্য।

সাবধানের সাথে অনলাইনে কাজ করতে হবে এবং বুঝে শুনে পথ চলতে হবে।

সঠিক পথ বেছে নিয়ে আয় করার পথে নামতে হবে। আপনি আবার মনে করবেন না যে এক ক্লিকেই অনেক টাকা পেয়ে যাবেন।

অনেকে তো এই এক ক্লিকে টাকা আয় করতে গিয়ে সময় এবং টাকা দুটোই নষ্ট করেছে।

সোজা কথা আপনাকে অনেক পরিশ্রম করতে হবে। তা না হলে আপনি অনলাইন থেকে টাকা আয় করতে পারবেনা।

 

Internet থেকে আয় করার কয়েকটি উপায় :

ইন্টারনেট থেকে আয় নিয়ে অনেক গুঞ্জন শোনা যায়, পোস্ট দেখা যায়, ভিডিও দেখা যায়।

আপনি Internet থেকে আয় করতে পারবেন কিন্তু স্বপ্নের মতো নয়।

এর জন্য আপনাকে অনেক পরিশ্রম করতে হবে।

নবাবের মত অলস হয়ে শুয়ে শুয়ে ডলার তো দূরের কথা এক কাপ চা ও আপনাকে কেউ দিবেনা।

তাই এই সব আজে বাজে পথে হাটা বাদ দিয়ে সঠিক পথে চালুন।

 

১. ওয়েবসাইট বা ব্লগ থেকে আয় :

আপনি চাইলে ওয়েবসাইটে বিজ্ঞাপন দেখিয়ে টাকা ইনকাম করতে পারেন।

তার জন্য আপনাকে ওয়েবসাইট তৈরি করতে হবে এবং তার সাথে ভাল ভাল আর্টিকেল লিখেতে হবে এবং ওয়েবসাইটের ভাল ভিজিটর থাকতে হবে।

এখন আপনি ভাবতে পারেন ওয়েবসাইট না হয় তৈরী করলাম কিন্তু ভিজিটর কোথাই পাব।

আসলে সাইটে যদি ভাল আর্টিকেল থাকে আর সেই ওয়েবসাইট যদি Google এর সাথে কানেক্টেড থাকে।

তাহলে আস্তে আস্তে ভিজিটর বাড়বে। এছাড়া বিভিন্ন সোশ্যাল মিডিয়ায় বিজ্ঞাপন দিয়ে ওয়েবসাইট প্রচার করতে পারেন।

 

২. ফ্রিল্যান্সিং করে আয় :

আপনি নিশ্চয়ই Freelancing এর কথা শুনেছেন বা বইতে পড়েছেন।

একজন Freelancer হিসেবে কাজ করতে পারেন কিন্তু এর জন্য আপনাকে অনেক কিছু জানতে হবে, শিখতে হবে।

এখানে যে কাজ গুলো থাকে সেগুলো শেখার জন্য আপনাকে প্রথমে পরিশ্রম এবং টাকা ইনভেস্ট করতে হবে।

এখানে আপনি কাজ নিয়ে নিদিষ্ট সময় পরে কাজ করে জমা দিয়ে টাকা আয় করতে পারবেন।

শিক্ষিত বেকারদের জন্য, চাকুরী জীবীদের জন্য ,মেধাবী ছাত্রদের জন্য একটি খোলা জানালা বলতে পারেন।

 

৩. গ্রাফিক্স ডিজাইন করে আয় :

ইন্টারনেট গ্রাফিক্স ডিজাইন বিক্রয়ের অনেক মার্কেট প্লেস রয়েছে । এগুলোতে গ্রাফিক্স ডিজাইন কেনা বেচা হয়ে থাকে ।

এগুলোর মধ্যে Graphicriver.Net, Caferess.Com, Zazzle.Com সাইট গুলো বেশ ভাল।

বিশেষ করে Graphicriver.Net কারন এটি এনভাটর একটি অংশ বিশেষ । এনভাটর এর বেশ কিছু সাইট রয়েছে।

যাই হোক Graphicriver.Net এই সাইট কাজ করে বড় বড় শপিং মলের মত করে বিভিন্ন ডিজাইন।

 

৪. ওয়েব ডিজাইন করে আয় :

ওয়েব টেম্পলেট বিক্রয়ের অনেক মার্কেট প্লেস রয়েছে। সেগুলোর মধ্যে একটি হলও Themeforest.Net এটিও এনভাটো নেটওয়ার্ক এর একটি ওয়েবসাইট ।

এনভাটোর কোন একটি ওয়েব সাইটে আপনি সাইন আপ করে থাকলে সেই ইউজার নেম ও পাসওয়ার্ড দিয়ে সাইন ইন করতে পারবেন।

শুধু কুইজে অংশ নিয়ে কাজ শুরু করতে হবে । এবং কাজ জমা দেবার নির্দেশিকা ভাল করে বুঝতে হবে।

 

৫. Flashden.Net থেকে আয় :

আপনি যদি একজন ভাল ফ্ল্যাশ ব্যবহার কারি হয়ে থাকেন।

আপনার জন্য রয়েছে ইন্টারনেট থেকে টাকা আয়ের সম্ভাবনা ।

ফ্লাসের এনিমেশন বাটন , ইত্যাদি তৈরী করে Flashden.Net সাইটে জমা দিয়ে।

এই সাইটের গ্যালারিতে যদি সুযোগ করে নিতে পারেন। আপনার এনিমেশন যতবার বিক্রি হবে তার উপর আপনি কমিশন পেতে থাকবেন ।

 

৬. ডিজাইন ও ছবি তুলে আয় :

আপনি যদি 3d ম্যাক্স , মায়া , আফটার ইফেক্ট ব্যাবহারকারি হয়ে থাকেন ও ভিডিও এডিটিং এর কাজ জানেন ।

অথবা ভাল ছবি তুলতে বা ভিডিও করতে পারেন । তবু আপনার জন্য ইন্টারনেট থেকে টাকা আয়ের সুযোগ রয়েছে।

 

৭. টেক্সট লিংক থেকে আয় :

আপনার ওয়েব সাইটে টেক্সট লিংক করেও নেট থেকেও আয় করা যায় ।

বিভিন্ন ওয়েবসাইড গুলোতে এই এড গুলো দেখা যায় ।

আপনার ওয়েবসাইট বা ব্লগের আর্টিকেল গুলোতে আপনি ও টেক্সট লিংক এড করেও আয় করার সুবিধা পেতে পারেন ।

এই এড এর বড় সুবিধা হল এতে আপনার জাইগার প্রয়োজন পড়েনা আর্টিকেলের মাঝেই এই কাজ করা যায়।

 

৮. আর্টিকেল বা রিভিউ লিখে আয় :

আপনি যদি ভাল আর্টিকেল বা রিভিউ লিখতে পারেন।

আপনার জন্য আয়ের সম্ভাবনা রয়েছে Reviewme.Com এ। এই সাইট সম্পর্কে আমার খুব ভাল ধারণা নেই।

তবে এমন কিছু মানুষের কাছে এই সব সাইট সম্পর্কে জেনেছি ।

যারা আপনাকে আমাকে ভুল তথ্য দেবে না। ফ্রিল্যান্সিং ইন্টারনেট থেকে আয় করার একটি সুন্দর পথ বাংলাদেশীদের জন্য।

কারন বাংলাদেশের টাকার মানের উপর ভিত্তি করে ২০০ ডলার বাংলাদেশীদের জন্য অনেক কিছু।

মনে করুন, একটি ৪০০ ডলারের কাজ বাংলাদেশীরা ৩০০/৩৫০ ডলারে সহজেই করতে পারবে ।

আমাদের দেশের সাধারন একটি পরিবার ৩০০ ডলারে ১ মাস চলতে পারে।

 

মন্তব্য :

পরিশেষে বলা যায় যে, Internet থেকে আয় করার উপায় – Internet Income সম্পর্কে এখানে বিস্তারিত আলোচনা করেছি।

সর্বোপরি, উপরে উল্লেখিত বিষয় গুলো জেনে কাজ করলে ইনশাআল্লাহ আপনি ইন্টারনেট থেকে আয় করতে পারবেন।

আমরা এই পোস্টে জানলাম Internet থেকে আয় করার কয়েকটি উপায় সম্পর্কে। আশা করি Internet Income করার এই উপায় গুলো সকলের পছন্দ হয়েছে।

এই পোস্টের বিষয়ে আপনার কিছু জানার থাকলে বা কোন প্রশ্ন থাকলে অবশ্যই কমেন্ট করে জানাবেন।

পোস্টটির মাধ্যমে উপকৃত হয়ে থাকলে অবশ্যই লাইক দিয়ে বন্ধুদের সাথে শেয়ার করবেন। সবসময় সুস্থ, সুন্দর ও নিরাপদে ভাল থাকবেন।

আমাদের আরও অন্যান্য পোস্টগুলো ভাল লাগলে অবশ্যই পড়তে পারেন। পরবতীর্তে আমাদের ওয়েবসাইটে আসার অনুরোধ করছি।

এই ধরণের লেখার নিয়মিত আপডেট পেতে আমাদের ফেসবুক পেজে এবং টুইটারে ফলো করে রাখতে পারেন।

ধন্যবাদ

 

Leave a Comment